শিরোনাম:
উত্তর টাঙ্গাইল সাংবাদিক ফোরামে পূর্ণাঙ্গ কমিট গঠন সুসজ্জিত গাড়িতে চেপে ‘রাজকীয়’ অবসরে গেলেন পুলিশ কনস্টেবল আকরাম বর্ণবাদী দুর্ব্যবহারের শিকার হয়েছিলেন ক্রিকেটার জাহিদ হিজলায় ভাইস চেয়ারম্যান আলতাফ হোসেনের আরোগ্য কামনায় দোয়া মোনাজাত সরকার বিরোধী ষড়যন্ত্র মোকাবিলায় আওয়ামী লীগ কর্মীদের প্রস্তুত থাকতে হবে এম এ সালাম। বোয়ালমারীতে কুমারনদীর মাটি ইট ভাটায় নেয়ার অভিযোগে ভাটা মালিককে ৫০হাজার টাকা জরিমানা সালথায় ইউসুফদিয়ায় আটদলীয় ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত নির্বাচনী প্রতিহিংসার জেরে মেহেরপুরে বেড়েই চলেছে ফসলের সাথে শত্রুতা। বাবার লাশ বাড়িতে রেখে এইচএসসি পরীক্ষা দিলেন মেরাজ লন্ডনের পাবলিক ট্রান্সপোর্টে মাস্ক না পরলে ৬৪০০ পাউণ্ড পর্যন্ত জরিমানা

ঝালকাঠিতে জেলা কর্ণধার কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

মো. নাঈম, ঝালকাঠি প্রতিনিধি:
  • আপডেটের সময় : সোমবার, ১৮ অক্টোবর, ২০২১

ঝালকাঠিতে আগামী নভেম্বর মাস থেকে ২ কোটি ৬৮লক্ষ ৭০ হাজার ৬২৪টাকা এবং ১হাজার ১৬৯.৩৭৯মে.টন চাল ও গম ব্যায়ে কাবিখা প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ শুরু হয়েছে। জেলার গ্রামীন জীবনে মানুষের চলাচলের জন্য মাটির কাজ(রাস্তা) নির্মান ও সংস্কার, ইট সালিং রাস্তা নির্মান এবং বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ প্রতিষ্ঠান ভিত্তিক মাঠ ভরাটের কাজ এই প্রকল্পের ভুক্ত রয়েছে। রবিবার সকাল ১১টায় জেলা প্রশাসকের সম্মেলন জেলা প্রশাসক মো. জোহর আলীর সভাপতিত্বে এ সংক্রান্ত জেলা কর্নধার কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। জেলা প্রসাসক আগামী মাসের মধ্যেই কাজ শুরু করতে নির্দেশনা দিয়েছেন।

ঝালকাঠি জেলায় প্রায় দু বছর পরে করোনা পরিস্থিতির কারণে কাবিখা ও টিআর প্রকল্পের বরাদ্ধ বন্ধ ছিল। এ বছর কাবিখা প্রকল্পের আওতায় ঝালকাঠি-১ ও ঝালকাঠি-২ আসনের সংসদ সদস্যের অনুকূলে প্রকল্প বরাদ্ধ করার জন্য প্রতিটি সংসদীয় এলাকার জন্য ৭১ লক্ষ ৭৮ হাজার ৫২২টাকা ও ১৪৯.৯৪ মেটন চাল ও অনুরূপ সংখ্যক গম বরাদ্ধ দিয়েছে। এছাড়া সদর উপজেলায় ৩১ লক্ষ ৮হাজার ৩১৯টাকা ও ৬৫.৭৭ মে টন চাল ও অনুরূপ পরিমান গম বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে। নলছিটি উপজেলা ৩৬ লক্ষ ৭২ হাজার ৭৬টাকা ও ৭৭.৭ মে টন গম ও অনুরূপ পরিমান চাল, রাজাপুর উপজেলায় ৩০ লক্ষ ৮৮ হাজার ২২৬ টাকা ও ৬৫.৩৪ মে টন ও অনুরূপ সংখ্যক চাল এবং কাঠালিয়া উপজেলায় ২৬ লক্ষ ৪৪ হাজার ৯৫৯ টাকা ও ৫৫.৯৪৫ মে.টন চাল ও অনুরূপ পরিমান গম বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে। এই বরাদ্ধ দিয়ো উপজেলা গুলো চাহিদা ভিত্তিক নিজস্ব প্রকল্প তৈরী করে বাস্তবায়ন করবে এবং সংসদ সদস্যর অনুমোধন করা প্রকল্পগুলো তৃণমূল পর্যায় উপজেলা পরিষদ বাস্তবায়ান করবে।

এই সভায় আরও জানান হয় সরকার জেলা ৪টি উপজেলায় নদী ভাঙ্গন ৬৮৯টি পরিবারের জন্য ৬৭ লক্ষ টাকা বরাদ্ধ দিয়েছে। এর মধ্যে সদর উপজেলায় ৯৮টি পরিবারের জন্য ১০ লক্ষ টাকা, নলছিটি উপজেলায় ৩৩৩টি পরিবারের জন্য ৩২ লক্ষ টাকা রাজাপুর উপজেলা ২০৩টি পরিবারের জন্য ১৯ লক্ষ টাকা এবং কাঠালিয়া উপজেলায় ৫৫টি উপজেলায় ৬লক্ষ টাকা বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে। শ্রেণি ভুক্ত নদী ভাঙ্গন এই পরিবার ১০ হাজার থেকে ৮হাজার টাকা করে সরকারের কাছ থেকে আর্থীক সহায়তা পাবে।

এই বিভাগের আরও খবর
কপিরাইট ©২০০০-২০২০, WsbNews24.com এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত।
Desing & Developed BY ServerNeed.Com
themesbazarwsbnews25
x